অপরাধজেলা সংবাদরাজশাহী

সাংবাদিকে মারধর অতঃপর মেরে ফেলার হুমকি

পঞ্চগড় জেলার আটোয়ারী উপজেলার বাংলাদেশ প্রেসক্লাব এর সাধারণ সম্পাদক মোঃ জাহিরুল ইসলাম কে সিন্ডিকেটের অসাধু সার কীটনাশক বিক্রেতা। আনিসুর রহমান কয়েকজন সহ জাহিরুল ইসলাম কে মারধর করেন ও সাংবাদিকতা ছুটাই দিবে বলে মেরে ফেলার হুমকি দেন।

 

গত৩১/০১/২০২৩ইং, উপজেলাধীন ফকিরগঞ্জ বাজারে আটোয়ারী উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার সার, কীটনাশক ও বীজ এর দোকানে ঝটিকা অভিযান পরিচালনাকরা কালিন মেয়াদ উত্তীর্ণ কৃষি উপকরণ ও মালামাল মোঃ আনিসুর রহমানের দোকান থেকে উদ্ধার করে জব্দ করেন এবং জব্দকৃত মালামাল।

 

উপজেলার কৃষি অফিসার উপস্থিত থেকে ও সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে আটোয়ারী মহিলা ডিগ্রি কলেজ সংলগ্ন ফাঁকা মাঠে নষ্ট করে ফেলেন। এবিষয়ে ঝটিকা অভিযান পরিচালনা ও জব্দ কৃত মালামাল। এর নিউজ কিছু পত্র পত্রিকায় প্রকাশ হইলে। আনিছুর রহমান সাংবাদিক জাহিরুল ইসলামের ক্ষিপ্ত হয়ে উঠেন, এবং বিভিন্ন প্রকার হুমকিশরুপ কথা বলেন তারই ধারাবাহিগতায় গত ১৪/০২/২০২৩ইং তারিখে আনুমানিক সন্ধ্যা ৬টার সময় সাংবাদিক জাহিরুল ইসলাম বাসা থেকে বাজারে যাওয়ার সময় রাস্তায়। আনিসুর রহমান ও তার সহ যোগী কয়েকজনকে নিয়ে সাংবাদিক জাহিরুলের পথ আটকিয়ে গালিগালাজ করে ।এক পরর্যায় জাহিরুলের উপর মার মুখি হয়ে ঝাপিয়ে পরে হাত পা চিপে ধরে তাকে চর থাপ্পড় কিল ঘুসি সহ এলোপাতাড়ি মারতে থাকে। এবং তার থাকা কাছে ৩১০০০ হাজার টাকা ছিলো তা ছিনিয়ে নেন। জাহিরুলের চিৎকার চেচামেচিতে এলাকাবাসী দেখতে পাইলে তাৎক্ষণিকভাবে আসামিদের হত থেকে থাকে রক্ষা করেন । জাহিরুলের অবস্থা আসংখ্যা জনক হওয়ায় স্থানিয় লোক জন আটোয়ারী সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।

 

এবিষয়ে সাংবাদক জাহিরুলের স্ত্রী কে দিয়ে লিখত এজাহার আটোয়ারী থানায় পাঠিয়ে মামলা দায়ের করেন ।যাহার মামলার নং ০৫.তাং ১৫/০২/২০২৩ইং, ধারা,৩৪১/৩২৩/৫০৬(২)দন্ডবিধি আইনে । মামলা হওয়ার পরেও আসামি প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়াচ্ছেন কিন্তু দুখের বিষয় তাকে এখনো আইনের আওতায় আনা হচ্ছেনা ।

 

এবিষয়ে আটোয়ারী থানার অফিসার্স ইনজার্জ মোঃ সোহেল রানা সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন বলেন। আমাদের কার্যক্রোম চলমান রয়েছে আসামি যতবড়ই প্রভাবশালি হউক না কেনো তাকে আইনের আওতায় আনা হবে ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button