দুর্ঘটনাসারাদেশ

বিশ্ববিদ্যালয়ে যাবার পথে নিহত

যশোর-চৌগাছা সড়কে বিএডিসি ট্রাক ও ভ্যানের সংঘর্ষে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীসহ চারজন নিহত হয়েছেন। রবিবার (১ জানুয়ারি) বিকাল সাড়ে ৪ টার দিকে যশোর-চৌগাছা সড়কে চুড়ামনকাঠি রেলক্রসিংয়ের পাশে আমিন ইটের ভাটার সামনে এই ঘটনাটি ঘটে। এছাড়া আহত হয়েছেন দুই জন। আহতদের যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

নিহতরা হলেন যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) পেট্রোলিয়াম এন্ড মাইনিং ইঞ্জিনিয়ার বিভাগের শিক্ষার্থী ফারজানা ইসলাম সুমি (২২), বাড়ি, নড়াইল জেলার, লোহাগাড়া উপজেলার, দিঘলিয়া পূর্বপার, পশু চিকিৎক ডাঃ মিজানূর রহমান এর মেয়ে। সুমি গত শুক্র বার ভাই এর বিয়েতে এসেছিল, আজ দুপুর ১ টার দিকে বাড়ি থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ে যাচ্ছিল, সুমির মৃতুতে বাড়িতে চলছে শোকের মাতন । যশোর সদর উপজেলার কমলাপুর গ্রামের জোহরা বেগম(৫৫) ও একই এলাকার বাসিন্দা ও ভ্যান চালক মাসুম হোসেন (২৮)।
আহতরা হলেন যবিপ্রবির মাস্টার্স বর্ষের শিক্ষার্থী মোতাসিন বিল্লাহ(২৪) ও সদরের কমলাপুর গ্রামের আমজেদ আলী আলী (৬৫)।

নিহত জোহরা বেগমের স্বামী ও প্রত্যক্ষদর্শী আমজেদ আলী জানান, আমরা যশোর জেনারেল হাসপাতাল থেকে চিকিৎসা নিয়ে ভ্যানে করে বাড়ি ফিরছিলাম। চুড়ামনকাঠি রেললাইন পার হয়ে ইটভাটার সামনে পৌছালে চৌগাছা থেকে বিএডিসির একটি দ্রুতগতিতে ট্রাক এসে আমাদের ভ্যানচাপা দেয়। ট্রাকের চাপায় আমার স্ত্রী ও ভ্যান চালকসহ তিনজন মারা যায়। আমি ও মোতাসিন নামে দুইজন বেচে যায়। ভ্যানে তারা স্বামী ন্ত্রীসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই শিক্ষার্থী এবং স্থানীয় আরেকজনসহ ৫জন যাত্রী ছিলেন।
হাসপাতালের জরুরি বিভাগের কর্মরত ডাক্তার শফিকুর রহমান বলেন, ট্রাকচাপায় চারজন মারা গেছে। তবে জোহরা নামে একজন নারীর মরদেহ হাসপাতালে এসেছে। ভর্তি দুইজন শঙ্কামুক্ত বলা যায়।

যশোর কোতয়ালী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তাজুল ইসলাম বলেন, দুর্ঘটনায় ভ্যানচালকসহ চারজন নিহত হয়েছে। এছাড়া আহত হয়েছে আরো দুই জন। ঘাতক বিএডিসি ট্রাকটি আটক করেছে পুলিশ।
এদিকে দুর্ঘটনার খবর পেয়ে হাসপাতালে নিহত ও আহত শিক্ষার্থীদের খোঁজখবর নিতে আসেন যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আনোয়ার হোসেন। এসময় তিনি বলেন, প্রায় এই সড়ক ছোট-বড় দুর্ঘটনা ঘটে। ড্রাইভারদের বেপরোয়া চলাচল ও গতির কারণ এটার প্রধান কারণ। তিনি এটি রোধে প্রশাসনের সুদৃষ্টি কামণা করেছেন। একই সাথে নিহত শিক্ষার্থীদের আত্মার শাস্তি ও আহত শিক্ষার্থীর দ্রুত সুস্থতা কামনা করেছেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button