আইন ও বিচারজেলা সংবাদরাজশাহী

জয়পুরহাটে আধুনিক জেলা হাসপাতালে ভূয়া নার্স আটক

জয়পুরহাট আধুনিক জেলা হাসপাতালে তুলি নামে এক ভূয়া নার্সকে আটক করা হয়েছে। আজ সোমবার (২০ মার্চ) দুপর ১২টার দিকে হাসপাতালের পুরুষ ওয়ার্ড থেকে আটক করা হয়।

আটকৃত ভুয়া নার্স জয়পুরহাট সদর উপজেলার ভাদশা ইউনিয়নের গোপালপুর গ্রামের রমজান আলীর মেয়ে।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে,হাসপাতালের পুরুষ ওয়ার্ডে ওই নারীকে সিনিয়র স্টাফ নার্সদের পোশাক পরিহিত অবস্থায় ডিউটি করতে দেখা যায়। তার গতিপ্রকৃতি সন্দেহজনক হলে হাসপাতালের অন্যান্য নার্সরা পরিচয় সম্পর্কে জানতে চাইলে ওই নারী উদ্ভট উত্তর দিতে থাকে। সে সঠিক নার্সের তথ্য না দেওয়া পরে তাকে উপসেবা তত্ত্বাবধায়ক অফিসে নিয়ে আসেন। পরবর্তীতে উপসেবা তত্ত্বাবধায়ক অফিসে জিজ্ঞাসায় বিভিন্ন সময় বিভিন্ন ভুল তথ্য দিয়ে থাকে।

হাসপাতালের উপসেবা তত্ত্বাবধায়ক মোছাঃনাজমা খাতুন বলেন,আজ সকাল থেকেই স্টাফ নার্সদের পোষাক পরিহিত অবস্থায় পুরুষ ওয়ার্ডে ডিউটি করছিলো এই তুলি নামের মেয়েটি, তাকে সন্দেহজনক হলে তার পরিচয় জিজ্ঞাসা করার পরিপেক্ষিতে সে সঠিক নার্সের তথ্য দিতে পারেনি, এবং কি কারণে এই পোশাক পরিধান করেছে তারও সঠিক উত্তর দিতে পারেনি। প্রায় হাসপাতালের রুগীদের মোবাইল ও ব্যাগ চুরি হয়। ধারণা করা হচ্ছে নার্সদের ভুয়া পোশাক পরে সে রোগীদের বেড থেকে মোবাইল ও টাকা চুরি করার জন্য এই পোশাক পরতে পারে।

উপসেবা তত্ত্বাবধায়ক আরও বলেন, এই কাজটি সে ঠিক করেনি, এইভাবে হাসপাতালের ভিতরে এরা এসে চুরি করে আর হাসপাতালের কর্মরত নার্স এবং স্ট্যাফদের দুর্নাম হয়।
পরে জয়পুরহাট সদর থানায় খবর দিলে তারা এসে ওই ভুয়া নার্সকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে যায়।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button